৩০ জানুয়ারি, ২০২৩ | ১৬ মাঘ, ১৪২৯ | ৭ রজব, ১৪৪৪


শিরোনাম
  ●  হাতের কব্জির রগ কেটে মোবাইল-ল্যাপটপ ছিনতাই   ●  কক্সবাজারে ইয়াবার মামলায় ৮ রোহিঙ্গার যাবজ্জীবন   ●  লোহাগাড়ায় পুলিশ কর্মকর্তার পরিবারকে ‘পেট্রোলের আগুনে’ পুড়িয়ে মারার চেষ্টা!   ●  চকরিয়ার সাহারবিলে সড়ক উন্নয়ন কাজ পরিদর্শন করলেন এমপি জাফর আলম   ●  রাইজিংবিডির বর্ষাসেরা প্রতিবেদক তারেককে আরইউসির শুভেচ্ছা   ●  স্ট্রীটফুড ও ড্রাই ফিস প্রশিক্ষাণার্থীদের মধ্যে সার্টিফিকেট বিতরণ ও সাপোর্ট প্রদান   ●  রামুতে দুই শতাধিক মানুষ বিনামূল্যে পেল স্বাস্থ্যসেবা ও ওষুধ   ●  সেন্টমার্টিনে রিসোর্ট নির্মাণ কাজ বন্ধের নির্দেশ দিলেন পরিবেশ অধিদপ্তর   ●  তত্ত্বাবধায়কের কাছে ভুক্তভোগীর আবেদন চিকিৎসার জন্য টাকা দাবি করলো নার্স, হুমকির অভিযোগ   ●  ডিজিটাল আইল্যান্ডকে স্মার্ট আইল্যান্ডে পরিণত করার পেছনের গল্প রচনা করবে ছাত্রলীগ

বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমানা নির্ধারণে যৌথ জরিপ চলছে

UKHIYA PIC 21.03.2015(3).psd
বান্দরবান পার্বত্য জেলা নাইক্ষ্যংছড়িতে বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমানা জরিপ ও সীমান্ত পিলার পুন: নির্মাণ কাজ শুরু হয়েছে। উভয় দেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পূর্ব-নির্ধারিত সিদ্ধান্ত অনুসারে বিজিবি এবং বিজিপির তত্ত্বাবধানে দুই দেশের ক্ষতিগ্রস্থ সীমানা পিলার সংষ্কার, পিলার ও সাব পিলার নির্মাণ বিষয়ক এ জরিপ কাজ নাইক্ষ্যংছড়ির লেম্বুছড়ি ও সদর ইউনিয়নের আশারতলী-চাকঢালা সীমান্ত দিয়ে গত ২১ জানুয়ারি থেকে শুরু হয়েছে। কক্সবাজার বিজিবি’র সেক্টর কমান্ডার কর্ণেল মোঃ খালেকুজ্জামান পিএসসি নিশ্চিত করে বলেন, জরিপ কার্যক্রম আগামী ১৯শে মে পর্যন্ত ধারাবাহিকতা থাকবে।
গতকাল শনিবার নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুম বিওপি’র দায়িত্বাধীন বাংলাদেশ-মিয়ানমার মৈত্রী সেতু সংলগ্ন বাংলাদেশের অভ্যন্তরে অনুষ্ঠিত মিয়ানমার বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি) ও বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি’র) ব্যাটালিয়ন কমান্ডার পর্যায়ের বৈঠক কালে বাংলাদেশ-মিয়ানমার যৌথ সীমান্ত সার্ভে সম্পর্কে আলোচনা হয়েছে। উক্ত বৈঠকে মিয়ানমার নম্বর-১ বর্ডার গার্ড পুলিশ ব্যাটালিয়নের কামান্ডিং অফিসার লে.কর্ণেল চো তুইঝা ও বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ কক্সবাজার ১৭ বিজিবি’র অধিনায়ক লে.কর্ণেল খন্দকার সাইফুল আলম প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন। উক্ত বৈঠকে বিজিবি’র পক্ষে আরো উপস্থিত ছিলেন, ৫০ বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে.কর্ণেল শফিউল আজম পারভেজ, ১৭ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের উপ-অধিনায়ক মেজর ইমরান উল¬াহ সরকার, পিবিজিএমএস এবং কক্সবাজার সেক্টরের স্টাফ অফিসার মেজর মাহবুব সাবের।
সূত্রে জানা গেছে, ২০১০ সালে ২৬ অক্টোবর থেকে ২৮ ফেব্র“য়ারী পর্যন্ত সীমান্ত এলাকায় জরিপ কাজ চালায় উভয় দেশের সার্ভে দল। জরিপ শেষে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার লেম্বুছড়ি ও তুমব্র“ সীমান্ত এলাকায় সীমান্ত পিলার ৩৪, ৩৫, ৫১ এবং ৫৩ নম্বর এলাকায় তুমব্র“ খালের ভাঙ্গনে মিয়ানমারের দখলে চলে যাওয়া ১৫ একর ভূমি ফেরত দিয়েছিল বাংলাদেশকে। প্রসঙ্গত, মিয়ানমারের সাথে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলায় ৩১ বিজিবির ব্যাটালিয়ন সীমান্ত ৭১ কি:মি ও জোনের অধীনে ৯৪ কি:মি সীমান্ত। এ জোনের অধীনে বর্ডার অবজারবেশন পোষ্ট (বিওপি) রয়েছে চাকঢালা, ভালুকখাইয়া, আশারতলী, ফুলতলী, লেমুছড়ি, পাইনছড়ি, দোছড়ি, ছাগলখাইয়া, তিরেরডিব্বা। এছাড়াও নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ৩১-৪০নং সীমান্ত পিলার পর্যন্ত ঘুমধুম-তুমব্র“, রেজু আমতলী, বাইশফাড়ি, উখিয়ার বালুখালী, পালংখালী পর্যন্ত ১৫ কি:মি: সীমান্ত পাহারায় নিয়োজিত রয়েছে কক্সবাজার ১৭ বিজিবি এবং ৩১ বিজিবি জোনের অধীনে রামু ৫০ বিজিবি নিয়ন্ত্রণ করছে নিকোছড়ি, রেজুপাড়া, মনজয়পাড়া এলাকার ৪০-৪৩ নং সীমান্তের ৮কি:মি সীমান্ত এলাকা। কিন্তু দোছড়ি এলাকার ৫৫-৬৩নং সীমান্ত পিলার এলাকা সম্পূর্ণ অরক্ষিত রয়েছে।
বাংলাদেশের সার্ভেয়ার জেনারেল অব বাংলাদেশের পক্ষে চার জন ও মিয়ানমারের পক্ষে ৮জন সার্ভেয়ার বর্তমানে সীমান্ত জরিপে নিয়োজিত রয়েছে। বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্ত এলাকায় পর্যায়ক্রমে ৫টি সীমান্ত পিলার, ১১টি এডিসনাল ও ১১টি রেফারেন্স পিলার স্থাপন করবে উভয় দেশ। সূত্র মতে, ২০১৪ইং সনে নাইক্ষ্যংছড়ি-মিয়ানমার সীমান্তে উত্তেজনা ও ২৮মে পাইনছড়ি সীমান্তে টহল দেওয়ার সময় ৩১ বিজিবির নায়েক মিজানুর রহমানকে মিয়ানমার বর্ডার গার্ড পুলিশবাহিনী গুলি করে হত্যা করার পর উভয় দেশের নীতি নির্ধারক টেবিলে উঠে আসে সীমান্ত জরিপের বিষয়টি।
কক্সবাজারস্থ বিজিবি’র সেক্টর কমান্ডার কর্ণেল মোঃ খালেকুজ্জামান পিএসসি আরো জানান, চলমান ক্ষতিগ্রস্থ পিলার সংষ্কার, পিলার ও সাব পিলার নির্মাণ বিষয়ক এ জরিপ কাজে কোন প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি। এদিকে গতকাল শনিবার তুমব্র“ সীমান্ত এলাকায় মিয়ানমার বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি) ও বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)’র মধ্যে অনুষ্ঠিত সৌহার্দ্যপূর্ণ বৈঠকেও বাংলাদেশ মিয়ানমার যৌথ সীমান্ত সার্ভে উপলক্ষ্যে ইতিবাচক আলোচনা হয়েছে বলে বৈঠকে উপস্থিত কক্সবাজার ১৭ বিজিবি’র অধিনায়ক লে.কর্ণেল খন্দকার সাইফুল আলম জানিয়েছেন।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।