৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ | ২৬ মাঘ, ১৪২৯ | ১৭ রজব, ১৪৪৪


শিরোনাম
  ●  চট্টগ্রামের বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ, এমপি মোসলেম উদ্দীনের মৃত্যুতে কক্সবাজার জেলা আ’লীগের শোক   ●  স্থানীয় সরকার মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলামের সঙ্গে একান্তে সাক্ষাত এমপি জাফর আলমের   ●  কক্সবাজার সদর হাসপাতালে হয়রানি ও হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন   ●  প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জীবনমানোন্নয়নে কক্সবাজার পৌর এলাকায় চলছে দরিদ্রবান্ধব নগর পরিকল্পনা ও উন্নয়ন কাজ   ●  পরিবেশ অধিদপ্তরের অভিযানে নিষিদ্ধ পলিথিন, হাইড্রোলিক হর্ণ জব্দ, জরিমানা   ●  বঙ্গবন্ধু ছিলেন বিশ্ব শ্রেষ্ঠ জাতীয়তাবাদের নেতা   ●  হাতের কব্জির রগ কেটে মোবাইল-ল্যাপটপ ছিনতাই   ●  কক্সবাজারে ইয়াবার মামলায় ৮ রোহিঙ্গার যাবজ্জীবন   ●  লোহাগাড়ায় পুলিশ কর্মকর্তার পরিবারকে ‘পেট্রোলের আগুনে’ পুড়িয়ে মারার চেষ্টা!   ●  চকরিয়ার সাহারবিলে সড়ক উন্নয়ন কাজ পরিদর্শন করলেন এমপি জাফর আলম

সালাহউদ্দিনের প্রতি মানুষের ভালবাসার শেঁকড় অনেক গভীরে

Cox BNP Shramik dal 22.03.15-1

বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালাহউদ্দিন আহমদকে অক্ষত অবস্থায় ফিরিয়ে দেওয়ার দাবীতে জেলা বিএনপি ঘোষিত
৬ দিনের আন্দোলন কর্মসূচীর শেষদিন গতকাল রবিবার বিকালে কক্সবাজার শহরে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে
জেলা শ্রমিক দল। শহরের শহীদ সরণীস্থ জেলা বিএনপি কার্যালয় প্রাঙ্গণে আয়োজিত এই সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা বিএনপির সভাপতি সাবেক হুইপ শাহজাহান চৌধুরী বলেছেন- সালাহউদ্দিন আহমদের প্রতি এদেশের মানুষের ভালবাসার শেঁকড় অনেক গভীরে। ১৩ দিন ধরে তার খোঁজ না পেয়ে গ্রাম-গঞ্জের মানুষ এখন আহাজারি করছে। রোজা ও নামাজ-কালাম পড়ে আল্লাহর দরবারে নালিশ করছে। সাধারণ মানুষের এ অনুভূতির কথা বর্তমান সরকার যদি জানত- তাহলে তাকে নিশ্চয় এভাবে আটকিয়ে রাখত না।’
এসময় তিনি আবেগ-আপ্লুত কন্ঠে আরো বলেন- ‘সালাহউদ্দিন আহমদের মত একজন মেধাবী নেতাকে ‘নিখোঁজ’ করে সরকার যে মানবতাবিরোধী অপরাধ করেছে তা দেশের ইতিহাসে কালো অধ্যায় হিসাবে লিপিবদ্ধ থাকবে।’
তিনি অবিলম্বে সালাহউদ্দিন আহমদকে ফিরিয়ে দেওয়ার দাবী জানিয়ে বলেন- অন্যথায় সরকারের পরিণতি শুভ হবে না।     জেলা শ্রমিক দলের সভাপতি পৌর প্যানেল মেয়র রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক কুতুবউদ্দিনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত উক্ত সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন- জেলা বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি এটিএম নুরুল বশর চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট শামীম আরা স্বúœা এবং সহ-সভাপতি ও পৌর বিএনপির সভাপতি আলহাজ্ব রফিকুল হুদা চৌধুরী।
সমাবেশে বক্তারা আরো বলেন-‘সালাহউদ্দিন আহমদকে ফিরিয়ে দেওয়ার দাবীতে আমরা এখনও শান্তিপূর্ণভাবে নিয়মতান্ত্রিক আন্দোলন করে যাচ্ছি। কিন্তু ধৈর্য্যের বাধ ভেঙ্গে গেলে কক্সবাজারের শ্রমিক জনতা কঠিন প্রতিরোধ গড়ে তুলবে। তখন বর্তমান সরকারের আফসোস করা ছাড়া অন্য কোন উপায় থাকবে না।’ বক্তারা সময় থাকতে সালাহউদ্দিনকে ফিরিয়ে দেওয়ার দাবী জানান।
সমাবেশ শুরুর আগে জেলা শহরের বিভিন্ন এলাকা থেকে খন্ড খন্ড মিছিল এসে জেলা বিএনপি কার্যালয়ে জড়ো হয়। এসময় সালাহউদ্দিনকে ফিরিয়ে দেওয়ার দাবীতে সরকারবিরোধী নানা শ্লোগান দেন শ্রমিক দল নেতাকর্মীরা।
সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন- পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক রাশেদ মোহাম্মদ আলী, সহ-সভাপতি এস্তাফিজুর রহমান, জেলা মৎস্যজীবী দলের সভাপতি হামিদউদ্দিন ইউসুফ গুন্নু, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি অধ্যাপক আজিজুর রহমান, জেলা যুবদলের সভাপতি ছৈয়দ আহমদ উজ্জ্বল, সাধারণ সম্পাদক ও পৌর প্যানেল মেয়র মোহাম্মদ জিসানউদ্দিন জিসান, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট মোহাম্মদ ইউনুছ, জেলা যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক আমির আলী, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি রাশেদুল হক রাসেল, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ মনিরউদ্দিন মনির, সদর যুবদলের আহবায়ক ফরিদুল আলম, পৌর যুবদলের সভাপতি মসউদুর রহমান মাসুদ, জেলা ছাত্রদলের সাংগঠনিক সম্পাদক শাহীনুল ইসলাম শাহীন, জেলা শ্রমিক দলের সিনিয়র সহ-সভাপতি মুজিবুল হক চৌধুরী, পৌর শ্রমিক দল সভাপতি এস্তাক আহমদ, জেলা শ্রমিক দলের যুগ্ম সম্পাদক আলমগীর হোসেন বাবু, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহাদৎ হোসেন ভূট্টো, শহর ছাত্রদলের আহবায়ক মো. ইলিয়াছ, যুগ্ম আহবায়ক শাহাদৎ হোসেন রিপন, ফাহিমুর রহমান, কক্সবাজার সরকারী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ সভাপতি ওসমান সরওয়ার রানা, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন, আইন কলেজ সভাপতি আলমগীর সোহেল, ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি আহবায়ক রায়হানউদ্দিন, সিটি কলেজ যুগ্ম আহবায়ক শামসুল আলম ও ইমরান হোসেন, রামু উপজেলা উপজেলা শ্রমিক দলের সভাপতি জাহেদুল ইসলাম, মহেশখালী উপজেলা শ্রমিক দলের আহবায়ক একরাম হোসেন, চকরিয়া পৌরসভা শ্রমিক দলের সভাপতি আবুল হোসেন মনু, মহেশখালী পৌরসভা শ্রমিক দলের আহবায়ক মহিউদ্দিন বাঁশি, পর্যটন অঞ্চল শ্রমিক দল সভাপতি খায়রুল আমিন, কক্সবাজার জেলা চালক শ্রমিক দলের সভাপতি ইয়াসির আরাফাত সোহেল, শিল্পাঞ্চল শ্রমিক দলের সহ-সভাপতি মফজল আহমদ, ঈদগাঁও সাংগঠনিক উপজেলা শ্রমিক দলের সভাপতি আলী আহমদ মুন্না, উখিয়া উপজেলা শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক জালাল আহমদ কোম্পানী, শহর শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন, চকরিয়া উপজেলা শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক মুসলেমউদ্দিন মোস্তাক, মহেশখালী উপজেলা শ্রমিক দলের যুগ্ম আহবায়ক খায়রুল আলম ভূট্টো, মহেশখালী পৌরসভা শ্রমিক দলের যুগ্ম আহবায়ক মকছুদ আহমদ, জেলা হোটেল শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ আনোয়ার, পর্যটন অঞ্চল শ্রমিক দল সিনিয়র সহ-সভাপতি জালাল আহমদ, জেলা আবাসিক হোটেল শ্রমিক দলের সভাপতি মোহাম্মদ আলী, সহ-সভাপতি আবু ছৈয়দ, কক্সবাজার পৌরসভা শ্রমিক দলের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন কালু, চকরিয়া পৌরসভা শ্রমিক দলের সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ জামাল উদ্দিন, শিল্পাঞ্চল শ্রমিক দলের সাংগঠনিক সম্পাদক মিজানুর রহমান, সহ-সভাপতি খুরশিদ আরা বেগম, জেলা শ্রমিক দলের যুব সম্পাদক রফিকুল ইসলাম রফিক, শ্রমিক নেতা আনিসউদ্দিন মাহমুদ, হাজী নুরুল আমিন, মো. আজিজ, মাহমুদুল হক, ফরিদুল আলম, মেহেদী হাসান বাবুল, মুরাদউদ্দিন, শফি আলম শফি, মনু আলম, জয়নাল আবেদীন, অলিউল্লাহ, মুবিন সিকদার, নুর কবীর, মো. কালু, মো. সেলিম, আবুল মনছুর, মো. খলিল, আবদুল আলিম ভান্ডারী, আবদুল মালেক, মো. ইউসুফ ও মো. ওসমান প্রমূখ। সমাবেশের শুরুতে কোরআন তেলাওয়াত করেন শ্রমিক নেতা গোলাম কুদ্দুস।
উল্লেখ্য, গত ১৬ মার্চ জেলা বিএনপি ঘোষিত ৬দিনের কর্মসূচী পালিত হয়। এর আগে একই দাবীতে হরতালসহ ৩ দিনের কর্মসূচী পালন করেছে জেলা বিএনপি। একই দাবীতে আজ সোমবার থেকে ১০দিনের আন্দোলন কর্মসূচী শুরু হচ্ছে।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।