২০ জুন, ২০২৪ | ৬ আষাঢ়, ১৪৩১ | ১৩ জিলহজ, ১৪৪৫


শিরোনাম
  ●  পাহাড় ধ্বসঃ ৮ রোহিঙ্গাসহ নিহত ১০   ●  উখিয়ার ক্যাম্পে পৃথক পাহাড় ধ্বসে ৭ রোহিঙ্গা সহ নিহত ৯   ●  রামুতে ঘুমন্ত স্বামী-স্ত্রীকে জবাই করে হত্যা   ●  উখিয়া-টেকনাফের ৫ শতাধিক তরুন-তরুণীকে কারিগরি প্রশিক্ষণ দিচ্ছে ‘সুশীলন’   ●  খাদ্যে ভেজাল রোধে সামাজিক আন্দোলন দরকার : খাদ্যমন্ত্রী   ●  ইজিবাইকের ছাদে তুলে ৮ বছরের শিশু নির্যাতন ভিডিও ভাইরাল: তিন অভিযুক্ত গ্রেপ্তার   ●  ভবিষ্যতে প্রেস কাউন্সিলের সার্টিফিকেট ছাড়া সাংবাদিকতা করা যাবে না   ●  একমাসেও অধরা ঘাতক চক্র, চাঞ্চল্যকর হত্যাকাণ্ডের অগ্রগতি নিয়ে পরিবারে হতাশ   ●  সমুদ্রকেই ঘিরে কক্সবাজারের অর্থনীতি   ●  সামাজিক কাজে বিশেষ অবদানের জন্য হাসিঘর ফাউন্ডেশনকে সম্মাননা স্মারক প্রদান

সালাহউদ্দিনকে দেশে ফিরিয়ে এনে দেশসেবার সুযোগ দিন

Cox JCD pic 15.
ভারতের মেঘালয় রাজ্যের শিলংয়ে চিকিৎসাধীন বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ও মুখপাত্র সালাহউদ্দিন আহমদকে উন্নত চিকিৎসা প্রদান ও সকল মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে দেশের রাজনীতিতে ভূমিকা রাখার মাধ্যমে দেশসেবার সুযোগ দেয়ার দাবিতে কক্সবাজার জেলা ছাত্রদলের আন্দোলন কর্মসূচি অব্যাহত রয়েছে। কর্মসূচির অংশ হিসাবে আজ সোমবার সালাহউদ্দিন আহমদের নিজ নির্বাচনী এলাকা চকরিয়ায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে উপজেলা, পৌরসভা ও কলেজ ছাত্রদল।
সোমবার সকাল সাড়ে ১১টায় চকরিয়া পৌরসভার সরকারী পাইলট হাইস্কুল ময়দান থেকে বিক্ষোভ মিছিলটি শুরু হয়ে শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে জনতা মার্কেট প্রাঙ্গণে গিয়ে এক সমাবেশে মিলিত হয়। বিক্ষোভ মিছিল চলাকালে স্থানীয় জনতা ও ব্যবসায়ীরা হাততালি দিয়ে ছাত্রদলের মিছিলকে স্বাগত জানান। চকরিয়া পৌরসভা ছাত্রদলের আহবায়ক মোহাম্মদ আলীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত বিক্ষোভ মিছিলোত্তর সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা ছাত্রদলের সভাপতি রাশেদুল হক রাসেল বলেন- ‘কক্সবাজারবাসীর প্রিয় নেতা সালাহউদ্দিন আহমদকে সরকার দীর্ঘ প্রায় দুইমাস ধরে গুম করে রেখে ভারতের শিলংয়ে ফেলে দিয়েছে। সেখানে মাসাধিককাল চিকিৎসাধীন থাকার পর এখন তিনি ক্রমে সুস্থ হয়ে উঠছেন। তবে তার আরো উন্নত চিকিৎসা দরকার। আমরা আমাদের এই প্রিয় নেতাকে উন্নত চিকিৎসা দিয়ে পূনরায় দেশসেবার সুযোগ দেয়ার দাবী জানাই। সেসাথে সালাহউদ্দিন আহমদসহ সকল নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে রাজনীতি করার সুযোগ দেয়ার দাবী জানাই।’ তিনি সরকারের দমন-নিপীড়নে জাতীয়তাবাদী শক্তির আন্দোলনকে স্তব্দ করা যাবে না মন্তব্য করে বলেন- ‘খালেদা জিয়ার ডাকে দেশরক্ষার আন্দোলন যৌক্তিক পরিণতি না পাওয়া পর্যন্ত অব্যাহত থাকবে।’
সমাবেশে প্রধান বক্তা ছিলেন জেলা ছাত্রদল সাধারণ সম্পাদক মনির উদ্দিন। তিনি বলেন- ‘সালাহউদ্দিন আহমদের মত উচুঁ মানের নেতা কক্সবাজার জেলায় আর দ্বিতীয়টি নেই। তিনি শুধু কক্সবাজারবাসির নেতা নন, সারাদেশের জাতীয়তাবাদী শক্তির এক শক্তিশালী ঝান্ডা। এজন্য সরকার তাকে দীর্ঘদিন লুকিয়ে রেখে বিএনপির আন্দোলনকে ক্ষতিগ্রস্ত করার চেষ্টা করেছে।’
সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন- চকরিয়া পৌরসভা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ হাশেম, চকরিয়া উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি হাসান মাহমুদ, সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি নুরুল আবছার রিয়াদ, সাবেক সাধারণ সম্পাদক আবদুল ওয়াদুদ, সাবেক যুগ্ম সম্পাদক শাহাদাৎ সামী, সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ইসমাইল হোসেন তুহীন, চকরিয়া পৌরসভা ছাত্রদলের যুগ্ম আহবায়ক সাদ্দাম হোসেন নিশান, নজরুল ইসলাম, সাজ্জাদুল ইসলাম সুমন, আনোয়ারুল ইসলাম আজাদ, চকরিয়া কলেজ ছাত্রদলের সভাপতি শরীফুল ইসলাম, সিনিয়র সহ-সভাপতি রায়হানুল ইসলাম রিপন, সাধারণ সম্পাদক মিনহাজ উদ্দিন, যুগ্ম সম্পাদক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ ও সাংগঠনিক সম্পাদক মেহেদী হাসান মানিক প্রমূখ। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন- সাবেক ছাত্রদল নেতা মনোহর আলম মনু, একরামুল হক, সাইফুল ইসলাম, মাতামুহুরী সাংগঠনিক উপজেলা ছাত্রদলের সহ-সভাপতি মামুন, সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম ও ছাত্রদল নেতা আবদুল্লাহ আল নোমান প্রমূখ।
উল্লেখ্য, গত ১০ মার্চ রাতে সালাহউদ্দিন আহমদকে রাজধানীর উত্তরার একটি বাসা থেকে সরকারের আইন শৃঙ্খলা বাহিনী তুলে নিয়ে যাওয়ার পর থেকে তার মুক্তির দাবীতে নিরবিচ্ছিন্নভাবে আন্দোলন কর্মসূচি চালিয়ে আসছে জেলা ছাত্রদল। এরই অংশ হিসাবে এখন উপজেলা পর্যায়ে বিভিন্ন আন্দোলন কর্মসূচি পালন করছে জেলা ছাত্রদল। কর্মসূচির অংশ হিসাবে কাল (আজ) মঙ্গলবার কক্সবাজার জেলা শহরে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।