২৩ মে, ২০২৪ | ৯ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ | ১৪ জিলকদ, ১৪৪৫


শিরোনাম
  ●  রোহিঙ্গা ক্যাম্পে সাঁড়াশি অভিযানে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র ও গুলিসহ আরসা সন্ত্রাসী গ্রেপ্তার    ●  নবগঠিত ঈদগাঁও উপজেলার প্রথম নির্বাচনে সহিংসতায় যুবক খুন; বসতবাড়ি ভাংচুরের অভিযোগ    ●  এভারকেয়ার হসপিটালের শিশু হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. তাহেরা নাজরীন এখন কক্সবাজারে   ●  কালেক্টরেট চতুর্থ শ্রেণী কর্মচারী সমিতির সভাপতি আব্দুল হক, সম্পাদক নাজমুল   ●  ক্যাম্পের বাইরে সেমিনারে অংশ নিয়ে আটক ৩২ রোহিঙ্গা   ●  চেয়ারম্যান প্রার্থী সামসুল আলমের অভিযোগ;  ‘আমার কর্মীদের হুমকি-ধমকি দেয়া হচ্ছে’   ●  নির্বাচন সুষ্ঠু করতে সবকিছু কঠোর থাকবে, অনিয়ম হলেই ৯৯৯ অভিযোগ করা যাবে   ●  উখিয়া -টেকনাফে শাসরুদ্ধকর অভিযানঃ  জি থ্রি রাইফেল, শুটারগান ও গুলিসহ গ্রেপ্তার ৫   ●  রোহিঙ্গা ক্যাম্পে হেড মাঝিকে  তুলে নিয়ে   গুলি করে হত্যা   ●  যুগান্তর কক্সবাজার প্রতিনিধি জসিমের পিতৃবিয়োগ

উপজেলা পরিষদ নির্বাচন

মহেশখালীতে সাংসদের বিরুদ্ধে নির্বাচনী পরিবেশ বিনষ্টের অভিযোগ 

কক্সবাজারের মহেশখালীতে প্রধানমন্ত্রীর ও দলীয় সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে স্বজনকে প্রার্থী দিয়ে নির্বাচনী পরিবেশ বিনষ্টের অভিযোগ করা হয়েছে স্থানীয় সাংসদের বিরুদ্ধে। এনিয়ে মহেশখালী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী সাবেক চেয়ারম্যান মো. শরীফ বাদশা স্থানীয় সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিকের বিরুদ্ধে রিটার্নিং অফিসারের কাছে অভিযোগ করেছেন।
উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সহ সভাপতি ও চেয়ারম্যান প্রার্থী শরীফ বাদশা রিটার্নিং অফিসারের কাছে লিখিত অভিযোগে জানান, স্থানীয় এমপি তার চাচাত ভাই হাবিব উল্লাহকে উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে দাঁড় করিয়ে নির্বাচনী পরিবেশ বিনষ্ট করছেন। এমপি তাঁর চাচাত ভাইয়ের পক্ষে নির্বাচনী মাঠে ব্যাপক প্রশাসনিক ক্ষমতা প্রয়োগ, তাঁর লোকজনদের দ্বারা পেশীশক্তি প্রয়োগ, নির্বাচনী মাঠে  মহড়া প্রদর্শন এবং আরো বিভিন্ন রকমের অপতৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছেন। প্রার্থী হাবিব উল্লাহ এমপির দাপট দেখিয়ে অন্যান্য প্রার্থীগণের নির্বাচনী তৎপরতায় বিভিন্নভাবে নির্বাচনী কার্যক্রমে বাধা প্রদান তথা হুমকি,ধমকির মাধ্যমে ভোটারসহ প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীদের মাঝে আতংকজনক পরিস্থিতি সৃষ্টি করছেন বলে লিখিত অভিযোগে জানান।
গত ২২ এপ্রিল কক্সবাজার রিটার্নিং অফিসারের কাছে লিখিত অভিযোগে তিনি আরো দাবী করেন, প্রধানমন্ত্রী উপজেলা নির্বাচনে মন্ত্রী—সংসদ সদস্যের আত্মীয়—স্বজনদের নির্বাচনে অংশ না নিতে নির্দেশ দিলেও তা উপেক্ষা করে এমপি আশেক সরাসরি আপন চাচাত ভাইয়ের পক্ষে ন্যাক্কারজনকভাবে নির্বাচনী কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন।
কক্সবাজার জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ নাজিম উদ্দিন অভিযোগ পাওয়ার সত্যাতা নিশ্চিত করে বলেন, বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
এ বিষয়ে জানার জন্য সাংসদ আশেক উল্লাহ রফিকের মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলে সংযোগ না পাওয়ায় বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।
উল্লেখ্য, মহেশখালী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৫জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন। আগামী ৮ মে প্রথম ধাপে অনুষ্টিত হবে এই উপজেলার নির্বাচন।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।