১ জুলাই, ২০২২ | ১৭ আষাঢ়, ১৪২৯ | ১ জিলহজ, ১৪৪৩


শিরোনাম
  ●  ছাত্রনেতা খোকা বালুখালী ০১ নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সভাপতি মনোনীত   ●  কক্সবাজার পৌরসভার উন্নয়ন কাজ পরিদর্শনে ৫ দেশের রাষ্ট্রদূত   ●  কক্সবাজার বিমানবন্দরে ফুলেল ভালবাসায় সিক্ত মেয়র মুজিব   ●  ঈদগাঁও উপজেলা গঠনে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের গেজেট স্থগিত   ●  আরও প্রশস্ত হচ্ছে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়ক   ●  ক্যাম্পে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে দেশীয় অস্ত্রসহ ৬ রোহিঙ্গা আটক   ●  বিশেষ কায়দায় ইয়াবা পাচার, ডিবি বিচক্ষণতায় ধরা পড়লো করিম উল্লাহ   ●  মহেশখালীতে প্রতিপক্ষের হামলায় নারী সহ আহত ৫   ●  আজ জাতীয় আনন্দের দিন- পুলিশ সুপার মো. হাসানুজ্জামান   ●  পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষে শাহপুরী হাইওয়ে পুলিশের আনন্দ র‌্যালি

টেকনাফে ইউপি সদস্যের হাতে এনজিওর ২ নারীকর্মীসহ ৬ জন আহত

নিজস্ব প্রতিবেদক:

টেকনাফের হ্নীলায় ওঠান বৈঠককালে ইউপি সদস্যের হাতে মারধরের শিকার ও লাঞ্ছিত হয়েছেন কোস্ট ফাউন্ডেশনের দুই নারীকর্মীসহ ৬ জন।

তারা হলেন- প্রকল্প ব্যবস্থাপক তাহরিমা আফরোজ টুম্পা (২৬), যুগ্ম পরিচালক ফেরদৌস আরা রুমি (৪২), প্রকল্প প্রধান মোঃ শাহীনুর ইসলাম (৩৪), মনিটরিং অফিসার আক্তার হোসেন (৩১), ফিল্ড কোঅডিনেটর রহিম উল্লাহ (৩২), ফিল্ড ফ্যাসিলিটেটর মিজানুর রহমান (২৬)।

বুধবার (২ ফেব্রুয়ারী) দুপুরে হ্নীলা ৫ নং ওয়ার্ডের নতুন জেলে পাড়ার মৃত কাশি মোহন দাশের বসত ভিটার উঠানে এ ঘটনা ঘটে।

৯৯৯-এ ফোন পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় থানা পুলিশ।।আহতদের উদ্ধার করে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

হামলা ও লাঞ্ছনার ঘটনায় মূল অভিযুক্ত রেজাউল করিম (৩৪) স্থানীয় ইউপি সদস্য ও মৃত আবুল কাসেমের ছেলে। তাকে প্রধান করে মোহাম্মদ ইসমাইল (৪৫) নামের ব্যক্তিসহ আরো ৫/৬ জনের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত এজাহার দিয়েছেন ভিকটিম নারীকর্মী তাহরিমা আফরোজ টুম্পা।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন টেকনাফ মডেল থানার ওসি (তদন্ত) আব্দুল আলিম। তিনি বলেন, এ ঘটনায় লিখিত এজাহার পেয়েছি। তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

অভিযুক্ত ইউপি সদস্য রেজাউল করিমের বক্তব্য জানতে ফোনে পাওয়া যায়নি।

ভিকটিম তাহরিমা আফরোজ টুম্পা বলেন, উঠান বৈঠক চলাকালে অতর্কিতভাবে এসে অহেতুক উত্তেজিত হয়ে আমাকেসহ আমার সহকর্মীদের অকথ্য ভাষায় গালিগাজ করেন মেম্বার রেজাউল করিম। সাথে আরো ৫/৬ জন লোক ছিল। তারা আমাদেরকে এক্ষুনি এলাকা ছেড়ে যেতে হুমকি-ধামকি দেয়। কিছু বুঝে উঠার আগেই অকথ্য ভাষায় গালমন্দের পাশাপাশি কিল, লাথি ঘুঁষিসহ শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করে।

আমার পরিহিত কাপড় ধরে টানা হেঁচড়া ও শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করে রেজাউল করিম। তারপর লাথি মেরে মাটিতে ফেলে দেয়। একইভাবে অন্যান্য সহকর্মীদেরও মারধর ও লাঞ্ছিত করে, জানালেন আহত তাহরিমা আফরোজ টুম্পা।

তিনি বলেন, পরিস্থিতি খুবই খারাপ হওয়ায় সহকর্মীরা ৯৯৯ নাম্বারে ফোন করে। খবর পেয়ে টেকনাফ থানার একদল পুলিশ সদস্য ঘটনাস্থলে পৌঁছে। এসময় অভিযুক্তরা পালিয়ে যায়।

পরবর্তীতে আমিসহ আহত অন্যান্য সহকর্মীরা টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা গ্রহন করি। আমরা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার আবেদন জানাচ্ছি।

উল্লেখ্য, কোস্ট ফাউন্ডেশন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের অধীনে এনজিও বিষয়ক ব্যুরো হতে নিবন্ধিত, যার নাম্বার-১২৪২। সংস্থাটি ১৯৯৮ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় এবং কক্সবাজার জেলায় ২০০১ সাল থেকে সকল উপজেলার উপকূলীয় দরিদ্র, নারী, শিশু ও পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নে কাজ করছে।

বিশেষ করে, ২০১৭ সালে রোহিঙ্গা আগমনের পর থেকে কক্সবাজার জেলায় মানবিক কার্যক্রম পরিচালনা করছে সংস্থাটি। উখিয়া এবং টেকনাফে রোহিঙ্গা আগমনের ফলে ক্ষতিগ্রস্তদের জীবনমান উন্নয়নে কোস্ট ফাউন্ডেশন বিভিন্ন প্রকল্প গ্রহন করে। হ্নীলা ইউনিয়নের ০১ থেকে ০৭ নং ওয়ার্ডের স্থানীয় ক্ষতিগ্রস্থ ৪৮৫ পরিবারের সাথে কাজ করছে। সমস্ত কর্মসূচি স্থানীয় প্রশাসন অবগত এবং সংশ্লিষ্ট দপ্তরের অনুমতি নিয়েই কর্মকাণ্ড পরিচালিত হয়।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।