১৪ এপ্রিল, ২০২৪ | ১ বৈশাখ, ১৪৩০ | ৪ শাওয়াল, ১৪৪৫


শিরোনাম
  ●  আদালতে ফরেস্টার সাজ্জাদ হত্যার দায়স্বীকার সেই ডাম্পার চালক বাপ্পির   ●  ‘অভিযানে ক্ষুব্ধ, ফরেস্টার সাজ্জাদকে পূর্বপরিকল্পনায় হত্যা করা হয়’   ●  ফাঁসিয়াখালীতে পৃথক অভিযানে জবর দখল উচ্ছেদ, বালিবাহী ডাম্পার জব্দ   ●  অসহায়দের পাশে ‘রাবেয়া আলী ফাউন্ডেশন’   ●  ফরেস্টার সাজ্জাদ হত্যার মূল ঘাতক সেই বাপ্পী পুলিশের জালে   ●  ক্রাইম রিপোর্টার্স এসোসিয়েশন অব কক্সবাজার,ক্র্যাকের সভাপতি জসিম, সম্পাদক নিহাদ   ●  নতুন জামাতে রঙিন ১০০ শিশুর মুখ   ●  মহেশখালী উপজেলা আ’লীগ সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার পাশা চৌধুরীর মৃত্যুতে জেলা আ’লীগের শোক   ●  পাহাড়ে শান্তি ফেরাতে যৌথ অভিযান   ●  নিরাপদ পেকুয়া গড়তে দলমত নির্বিশেষে সকলকে এক হতে হবে, ড. সজীব

জেলার সঙ্গীত শিল্পীদের নিয়ে গঠিত হলো “কক্সবাজার জেলা সঙ্গীত শিল্পী কল্যাণ পরিষদ”

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি:

সঙ্গীত শিল্পীদের কল্যান, আত্ম মর্যাদা ও অধিকার প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে জেলাব্যাপী ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা প্রতিভাবান সঙ্গীত শিল্পীদের নিয়ে কক্সবাজার সমুদ্র নগরীতে প্রথমবারের মতো গঠিত হলো বৃহত্তম সংগঠন “কক্সবাজার জেলা সঙ্গীত শিল্পী কল্যাণ পরিষদ”।
সোমবার (২৬ ডিসেম্বর) বিকেলে পর্যটন মোটেল শৈবাল এর সাগরিকা রেস্টুরেন্ট মিলনায়তনে জেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আসা প্রায় ৬০ জনেরও অধিক প্রতিভাবান সংগীত শিল্পীদের নিয়ে এক মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়। সভায় কক্সবাজার এর গুণী, প্রবীণ সঙ্গীত শিল্পী বৃন্দ এবং উদীয়মান তরুণ শিল্পীদের আলোচনা, পরামর্শ ও সিদ্ধান্তের ভিত্তিতে আগামী এক মাসের জন্য একটি আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়।
মত বিনিময় সভায় উপস্থিত সকলের সর্ব—সম্মতিক্রমে বাংলাদেশ বেতার কক্সবাজার এর সঙ্গীত প্রযোজক বশিরুল ইসলামকে আহবায়ক এবং বেতার সঙ্গীত শিল্পী ফরমান উল্লাহকে সদস্য সচিব করে উক্ত কমিটিতে প্রতিটি উপজেলার ০১ জন করে প্রতিনিধির সমন্বয়ে আগামী এক মাসের জন্য ১১ সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি গঠন করা হয়।
ফরমান উল্লাহ’র সঞ্চালনায় প্রথমে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ বেতার কক্সবাজার এর সঙ্গীত প্রযোজক বশিরুল ইসলাম। পরে সভায় গুরুত্বপূর্ন বক্তব্য রাখেন, জেলার প্রবীণ ও গুণী শিল্পীদের মধ্যে রায়হান উদ্দিন, আবু হায়দার ওসমানী, আলম শাহ, রাজিব বড়ুয়া, কল্যাণ পাল, লায়েক হায়দার, মানসী বড়ুয়া, মোহাম্মদ সেলিম, মুবিনুল ইসলাম নওশাদ, শামীম আক্তার, ধ্রুব রাসেল, এইচ বি পান্থ, তালেব মাহমুদ, বুলবুল আক্তার, এসএম জসিম, জাফর আলম আজাদ, পুলক বড়–য়া, মহুয়া ঘোষ, সোনিয়া বড়ুয়া প্রমুখ।
এছাড়া নাছির উদ্দিন বিপু, রাজীব বড়–য়া, হাসান উল্লাহ, সমীর শীল, প্রদীপ ঘোষ, জাহাঙ্গীর, ইস্কান্দার মীর্জা, মো: জাহাঙ্গীর আলম, মো: সোহেল রানা, মো: রেজাউল করিম, এম আজম শাহ, মো: কামাল উদ্দিন, নুর মোহাম্মদ, মো: শাহজাহান চৌধুরী সাজু, নিপা ভট্টাচার্য্য, সালেহা নাসরিন স্বপ্না, সুলেখা বড়–য়া, আকাশ, কামরুন নাহার, সচিন কর্মকার তিলক, প্রিয়া দত্ত, রবি হাসান, পলি বড়–য়া, কাকলী বড়–য়া, আথেনলা রাখাইন, অসীম বড়–য়া, জেসমিন, রাজীব বড়য়া, আবুল কাশেম, অনুপ নন্দী, সজল দে, সংগীত বড়–য়া, এখলাছুর রহমান, সোমা দাস প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
আহবায়ক কমিটিতে প্রাথমিকভাবে সদর উপজেলায় সংগীতশিল্পী নাসির উদ্দীন বিপু, রামু উপজেলায় এইচ বি পান্থ, চকরিয়ায় মুবিনুল ইসলাম নওশাদ, পেকুয়ায় আযম শাহ, মহেশখালীতে লাইয়েক হায়দার, কুতুবদিয়ায় সমীর শীল এবং উখিয়া—টেকনাফ এর প্রতিনিধি হিসেবে ধ্রুব রাসেল এবং সহ প্রতিনিধি হিসেবে জাফর আলম আজাদ ও সোহেল রানা এর নাম ঘোষণা করা হয়।

উল্লেখ্য যে, সংগীত শিল্পীদের সার্বিক কল্যাণের উদ্দেশ্যে কক্সবাজার জেলার সকল প্রতিভাবান শিল্পীদের নিয়ে উক্ত সংগঠনটি কাজ করবে। পরবর্তীতে জেলায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা সকল স্তরের সংগীত শিল্পীদের উক্ত সংগঠন এ অন্তর্ভুক্ত করা হবে বলে জানান আয়োজকেরা। এছাড়াও আগামী এক মাসের মধ্যে শিল্পীদের সদস্য ফরম পুরণ, সংগঠনটির বিভিন্ন করনীয় নির্ধারন, গঠনতন্ত্র প্রনয়নসহ পূর্ণাঙ্গ কমিটি প্রকাশ করা হবে বলে সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।