১ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ | ১৮ মাঘ, ১৪২৯ | ৯ রজব, ১৪৪৪


শিরোনাম
  ●  পরিবেশ অধিদপ্তরের অভিযানে নিষিদ্ধ পলিথিন, হাইড্রোলিক হর্ণ জব্দ, জরিমানা   ●  বঙ্গবন্ধু ছিলেন বিশ্ব শ্রেষ্ঠ জাতীয়তাবাদের নেতা   ●  হাতের কব্জির রগ কেটে মোবাইল-ল্যাপটপ ছিনতাই   ●  কক্সবাজারে ইয়াবার মামলায় ৮ রোহিঙ্গার যাবজ্জীবন   ●  লোহাগাড়ায় পুলিশ কর্মকর্তার পরিবারকে ‘পেট্রোলের আগুনে’ পুড়িয়ে মারার চেষ্টা!   ●  চকরিয়ার সাহারবিলে সড়ক উন্নয়ন কাজ পরিদর্শন করলেন এমপি জাফর আলম   ●  রাইজিংবিডির বর্ষাসেরা প্রতিবেদক তারেককে আরইউসির শুভেচ্ছা   ●  স্ট্রীটফুড ও ড্রাই ফিস প্রশিক্ষাণার্থীদের মধ্যে সার্টিফিকেট বিতরণ ও সাপোর্ট প্রদান   ●  রামুতে দুই শতাধিক মানুষ বিনামূল্যে পেল স্বাস্থ্যসেবা ও ওষুধ   ●  সেন্টমার্টিনে রিসোর্ট নির্মাণ কাজ বন্ধের নির্দেশ দিলেন পরিবেশ অধিদপ্তর

জামায়াত নেতা মাষ্টার আবুল কালাম আজাদকে গ্রেপ্তারের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ

images-2
পেকুয়া উপজেলা জামায়াতের আমীর, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ মাষ্টার আবুল কালাম আজাদকে বিনা মামলায় অন্যায়ভাবে গ্রেপ্তারের প্রতিবাদ ও অবিলম্বে মুক্তি দাবী করে বিবৃতি দিয়েছেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইমলামী কেন্দ্র্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও জেলা জামায়াতের আমীর মুঃ শাহজাহান এবং সেক্রেটারী ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান জি.এম রহীমুল্লাহ।
বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় বলেন, সরকার গদি রক্ষার কৌশল হিসেবে দেশব্যাপী বিরোধী দলের নেতা-কর্মীদের পাইকারী হারে গ্রেপ্তার করে চলমান গণআন্দোলনকে দমানোর অপচেষ্টা করছে। সরকারের অবৈধ ও অগনতান্ত্রিক কর্মকান্ডের বিরুদ্ধে ফুসে উঠা সংগ্রামী জনতাকে গ্রেপ্তার করে, গুম-খুন করে দমিয়ে রাখা যাবেনা। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে দিয়ে গদি রক্ষার কৌশল কাজে আসবেনা।
নেতৃদ্বয় আরো বলেন, জামায়াত নেতা মাষ্টার আবুল কালাম আজাদ একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা। তিনি সবসময় এলাকার শান্তি-শৃঙ্খলা ও স্থিতিশীলতা রক্ষায় ভূমিকা রাখতেন। শিক্ষানুরাগী ও সমাজসেবক হিসেবে মাষ্টার কালামের অবস্থান ছিল অগ্রগন্য। এরপরেও সরকার আতংকিত হয়ে এবং আন্দোলন দমনের অপকৌশল হিসেবে তাকে গ্রেপ্তার করেছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি এবং অবিলম্বে জামায়াত নেতা মাষ্টার আবুল কালাম সহ গ্রেপ্তারকৃত সকল নেতা-কর্মীর মুক্তি দাবী করছি। পাশাপাশি চলমান গণতান্ত্রিক কর্মসূচী শান্তিপূর্ন ও অহিংসভাবে চালিয়ে যাওয়ার জন্য আমরা সকল নেতা-কর্মীর প্রতি আহবান জানাচ্ছি। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে গণতান্ত্রিক অহিংস আন্দোলনে বেআইনী হস্তক্ষেপ ও উস্কানীমূলক কর্মকান্ড থেকে বিরত থাকার দৃষ্টি আকর্ষন করছি।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।