১৭ এপ্রিল, ২০২৪ | ৪ বৈশাখ, ১৪৩১ | ৭ শাওয়াল, ১৪৪৫


শিরোনাম
  ●  ‘বনকর্মীদের শোকের মাঝেও স্বস্তি, হত্যার ‘পরিকল্পনাকারি কামালসহ গ্রেপ্তার আরও ২   ●  উখিয়া নাগরিক পরিষদ এর ঈদ পুনর্মিলনী ও মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত   ●  আদালতে ফরেস্টার সাজ্জাদ হত্যার দায়স্বীকার সেই ডাম্পার চালক বাপ্পির   ●  ‘অভিযানে ক্ষুব্ধ, ফরেস্টার সাজ্জাদকে পূর্বপরিকল্পনায় হত্যা করা হয়’   ●  ফাঁসিয়াখালীতে পৃথক অভিযানে জবর দখল উচ্ছেদ, বালিবাহী ডাম্পার জব্দ   ●  অসহায়দের পাশে ‘রাবেয়া আলী ফাউন্ডেশন’   ●  ফরেস্টার সাজ্জাদ হত্যার মূল ঘাতক সেই বাপ্পী পুলিশের জালে   ●  ক্রাইম রিপোর্টার্স এসোসিয়েশন অব কক্সবাজার,ক্র্যাকের সভাপতি জসিম, সম্পাদক নিহাদ   ●  নতুন জামাতে রঙিন ১০০ শিশুর মুখ   ●  মহেশখালী উপজেলা আ’লীগ সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার পাশা চৌধুরীর মৃত্যুতে জেলা আ’লীগের শোক

কক্সবাজারে ইমারত আইন অমান্য করে বহুতল ভবন নির্মাণের অভিযোগ

বার্তা পরিবেশক:

কক্সবাজার পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ডের পূর্ব সিকদারপাড়া এলাকায় ইমারত নির্মাণ বিধিমালা না মেনে চলাচলের রাস্তা দখল করে স্থাপনা নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে। কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ ( কউক) এর চেয়ারম্যান বরাবর অবৈধভাবে স্থাপনা নির্মাণকারী বার্মাইয়া মাঝির ছেলে আবু ছৈয়দের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন স্থানীয়রা। অভিযোগে জানা যায়, দীর্ঘদিনের চলার রাস্তা দখল করে ইমারত নির্মাণ বিধিমালা অমান্য করে আবু ছৈয়দ জোর খাটিয়ে
বহুতল ভবন নির্মাণ করতে দেখলে ঐ সড়কের চলাচলকারী স্থানীয় লোকজন বাঁধা দেওয়ায় বার্মাইয়া মাঝির ছেলে আবু ছৈয়দ ক্ষিপ্ত হয়ে স্থানীয়দের নানান ভাবে হুমকি-ধমকি দিয়েই তাদের বারন অমান্য করে ইতিমধ্যে বহুতল ভবন নির্মানের জন্য পাইলিং শেষ করেছে এবং রাস্তার উপর এসে বাউন্ডারি ওয়ালের কাজ করতেছে। ইমারত নির্মাণ বিধিমালায় রাস্তার জন্য যথাযথ জায়গা রেখে স্থাপনা নির্মাণের কথা থাকলেও রাস্তার জায়গা দখল করে বাউন্ডারি নির্মাণসহ বহুতল ভবন নির্মাণের কাজ করছে আবু ছৈয়দ। ফলে চলাচলের রাস্তাটি সরু হয়ে যাওয়ায় ওই সড়কে চলাচলকারী লোকজনের যাতায়াতের ব্যাঘাত সৃষ্টি হচ্ছে।

ভবন নির্মানের আগে বাঁধা না দিলে সরু রাস্তা দিয়ে আর চলাচল করা যাবেনা। এমনকি অগ্নিকান্ডসহ বড় ধরনের দূর্ঘটনা থেকে এলাকাবাসীকে রক্ষা করা সম্ভব হবে না। এমতাবস্থায় সরেজমিন তদন্তপূর্বক বাংলাদেশ ইমারত নির্মাণ আইন প্রয়োগ করে স্থাপনা নির্মাণের নির্দেশনা প্রদানের জন্য কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন ভুক্তভোগীরা।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।